Cars Under 10 Lakh : লাগবে না কোটি টাকা, মাত্র 10 লাখের মধ্যেই পাবেন এই 5টি দুর্দান্ত গাড়ি, দেখে নিন

এই প্রতিবেদনে Cars Under 10 Lakh-এর সম্পর্কে বিস্তারিত জানাবো। তবে এই গাড়িগুলির রেটিং উচ্চমানের না হলেও রাস্তায় তাদের রেকর্ড বেশ ভালো।

Cars Under 10 Lakh : ভারতে গাড়ি কেনার সময় গ্রাহকরা নিরপত্তার বিষয়টিকে বিশেষ গুরুত্ব দেয়। ভারতীয় বাজারে পাওয়ারফুল গাড়ি তৈরির জন্য সরকারের তরফ থেকে গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলিকে সুরক্ষার নিয়মগুলির ব্যাপারে ক্রমাগত জোর দিচ্ছে।

Cars Under 10 Lakh

যদিও, বাজেটের গাড়ির চাহিদা বিবেচনা করে, আমরা এই প্রতিবেদনে Cars Under 10 Lakh-এর সম্পর্কে বিস্তারিত জানাবো। তবে এই গাড়িগুলির রেটিং উচ্চমানের না হলেও রাস্তায় তাদের রেকর্ড বেশ ভালো।

Cars Under 10 Lakh : দেখে নিন কোন কোন গাড়ি পাবেন 10 লাখের মধ্যে

Hyundai Grand i10 Nios : বর্তমানে, Hyundai তার Grand i10 Nios এর AT এবং MT ভেরিয়েন্ত স্ট্যান্ডার্ড হিসাবে 6টি এয়ারব্যাগ অফার করে। গাড়িটিতে প্যাসেঞ্জারদের জন্য Three-Point সিটবেলট, TPMS এবং সিটবেলট সতর্কতার পাশাপাশি ISOFIX চাইল্ড-সিট মাউন্টিং পয়েন্ট রয়েছে। Grand i10 Nios শেষ ক্র্যাশ টেস্ট GNCAP এ দুটি স্টার পেয়েছে। Hyundai Grand i10 Nios-এর দাম 5.84 লাখ টাকা থেকে শুরু হয় এবং 8.51 লাখ টাকা পর্যন্ত হয়। এই তথ্য পাওয়া যায় এক্স-শোরুম থেকে।

আরও পড়ুন : Top 5 EVs Of 2023 : Tata থেকে Hyundai, দেখে নিন 2023-এর প্রথম সারির 5টি ইলেকট্রিক গাড়ি

Renault Triber : এই গাড়িটির নামও নিরাপদ ও সাশ্রয়ী গাড়ির তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এই সাব-4 MPV মডেলের টপ স্পেক RXZ AMT-এ একটি ভাল নিরাপত্তা কিট দেওয়া হয়েছে। নিরাপত্তার জন্য, এতে 4টি এয়ারব্যাগ, EBD সহ ABS, পিছনে পারকিং সেন্সর এবং ভিউ ক্যামেরার মতো ফিচারস রয়েছে। এ বছর 2.5 লাখ ইলেকট্রিক স্কুটার বিক্রি করেও লোকসানে OLA ইলেকট্রিক!

Citroen C3 : যদিও এই গাড়িটি GNCAP ক্র্যাশ পরীক্ষা করা হয়নি। তবে এই গাড়িটির নিরাপত্তা অসাধারন। যাত্রীদের সঠিক অর্থে নিরাপত্তা দেওয়ার জন্য, এতে আছে ডুয়াল ফ্রন্ট এয়ারব্যাগ, EBD সহ ABS এবং পিছনের পাকিং সেন্সরের মতো ফিচারস রয়েছে। Citroen C3 এর দাম 6.16 লাখ টাকা থেকে শুরু হয় এবং 8.80 লাখ টাকা পর্যন্ত হয়ে যায়।

Tata Tiago এবং Tigor : এই গাড়ি GNCAP ক্র্যাশ পরীক্ষায় নিরাপত্তায় 4 রেটিং পেয়েছে। এই দুটি গাড়িতেই ডুয়াল ফ্রন্ট এয়ারব্যাগ, ও TPMS এবং সিটবেল্টের সতর্কতা রয়েছে। এছাড়াও, উভয় গাড়িতেই, মাঝারি যাত্রীর জন্য পিছনের Three-Point সিটবেলট বা ISOFIX চাইল্ড সিট মাউন্টিং পয়েন্ট নেই। বলাইবাহুল্য, Tata Tigor-এর দাম শুরু হচ্ছে 6.30 লাখ টাকা থেকে। অন্যদিকে, Tata Tiago-এর দাম শুরু হয় 5.60 লাখ টাকা।

আরও পড়ুন : Mahindra XUV300 : শীঘ্রই বাজারে এন্ট্রি নিতে চলেছে Mahindra-র XUV300, লঞ্চের আগেই ফাঁস লুক ও ফিচারস 

Maruti Suzuki Swift : Maruti-এর সবথেকে জনপ্রিয় ব্যাজটি আগামী বছর 2024-এ একটি নতুন মডেলে আনা হবে। তবে বর্তমান গাড়িটি 2018 সাল থেকে বিক্রয়ের জন্য উপলব্ধ। যদিও গাড়িটি GNCAP ক্র্যাশ টেস্টে ভালো রেটিং পায়নি। নতুন Maruti Swift এ ডুয়াল ফ্রন্ট এয়ারব্যাগ এবং সিটবেল্ট সতর্কতার সুবিধা থাকবে। নতুন এই মডেলে 1.2-লিটার পেট্রোল, 3-সিলিন্ডার পেট্রোল-হাইব্রিড ইঞ্জিন বিকল্প থাকবে। এই পাওয়ারফুল ইঞ্জিনগুলি 80bhp শক্তি এবং 108Nm টর্ক উৎপাদন করতে পারবে। জাপান স্পেক সুফইট অফ-রোড প্রেমীদের জন্য একটি 4WD ভেরিয়েন্ট অফার করে।

আরো পড়ুন