Scooter Security : চোরও ভয় পাবে চুরি করতে, স্কুটারের সিটের নীচে অবশ্যই লাগান এই জিনিস

রাতের অন্ধকারে আপনার শখের স্কুটারের সাথে কী হচ্ছে জানবেন কিভাবে? অচেনা কোনো জায়গায় পার্ক করলে চুরি হয়ে যাওয়ার ভয় তো থাকেই। তাহলে এখন উপায় কী? জেনে নিন আজকের প্রতিবেদনে।

Scooter Security : এখন প্রায় অনেকেই স্কুটার কিনেছেন। পরিশ্রমের টাকা দিয়ে কেনা শখের স্কুটার সকলেই সুরক্ষিত রাখতে চায়। কিন্তু সবসময় কি সুরক্ষিত রাখা সম্ভব? রাতের অন্ধকারে আপনার শখের স্কুটারের সাথে কী হচ্ছে জানবেন কিভাবে? অচেনা কোনো জায়গায় পার্ক করলে চুরি হয়ে যাওয়ার ভয় তো থাকেই। তাহলে এখন উপায় কী? জেনে নিন আজকের প্রতিবেদনে।

Scooter Security

স্কুটার পুরুষ থেকে মহিলা লিঙ্গ ও বয়স নির্বিশেষে সকলেই চালাতে পারেন। এখন তো রাস্তায় মোটরসাইকেলের থেকে বেশি স্কুটার দেখা যায়। এই ধরনের দুই চাকার যানবাহন নিয়ন্ত্রণ করা তুলনামূলক সহজ। এতে জ্বালানি তেল খুব বেশি খরচ হয় না, কিন্তু মাইলেজ দেয় দুর্দান্ত। তবে স্কুটার চুরি করা কিন্তু খুব একটা কঠিন কাজ নয় পাকা চোরেদের জন্য।

Scooter Security : চুরি আটকাতে সাহায্য করবে এই ডিভাইসগুলি

কিল সুইচ : এটি ব্যবহার করলে স্পার্ক প্লাগ থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ আটকে যায়। এই কারণে স্কুটারের ইঞ্জিন স্টার্ট হবে না। ফলে অন্য কেউ চাইলেও আপনার স্কুটার ব্যবহার করতে পারবে না।

লক সিস্টেম : আপনারা চাইলে একাধিক লক ব্যবহার করতে পারেন স্কুটার চুরি রুখতে। বিশেষত নিরিবিলি পরিবেশে এই পদক্ষেপ গ্রহণ করতে পারেন আপনারা।

অ্যান্টি থেফ্ট অ্যালার্ম : এটি স্কুটারে ব্যবহার করলে চুরির হাত থেকে রক্ষা পেতে পারেন। আপনার অমতে কেউ স্কুটার নিয়ে টানাটানি করলেই অ্যালার্ম বেজে উঠবে। অনলাইন আর অফলাইন দুইভাবেই এটি কিনতে পারবেন।

জিপিএস সিস্টেম : আপনার স্কুটারের লোকেশন জেনে যাবেন এই জিপিএস সিস্টেম ব্যবহার করে। এটি স্কুটারের সিটের নিচে ইনস্টল করা যাবে।

আরো পড়ুন