ADVERTISEMENT

Tata Nexon EV Max : দুর্দান্ত ফিচার্সে নতুন করে সাজানো হল টাটার এই ইভি কে

ক্রেতাদের নয়া চমক দিতে নতুন করে সাজানো হল এই Tata Nexon EV Max গাড়িটিকে

ADVERTISEMENT

Tata Motors Nexon EV Max XZ+ Lux ভ্যারিএন্টটিকে নতুন ভাবে আপডেট করেছে এবং এই গাড়িতে Tata Nexon EV Max ডার্ক এডিশনকে অনুসরণ করে নতুন ১০.২৫-ইঞ্চি টাচস্ক্রিন দেওয়া হয়েছে। ভারতে 3.3kW চার্জারের সাথে XZ+ Lux-এর দাম রাখা হয়েছে ১৮.৭৯ লক্ষ টাকা (এক্স-শোরুম)। অন্যদিকে, Tata Motors 7.2kW এর চার্জার সহ ভ্যরিএন্টটি ১৯.২৯ লক্ষ টাকায় (এক্স-শোরুম) তার ক্রেতাদের অফার করছে।

ADVERTISEMENT

Tata Nexon EV Max : নতুন ফিচার্সগুলি কী কী

Tata Nexon EV Max : দুর্দান্ত ফিচার্সে নতুন করে সাজানো হল টাটার এই ইভি কে

ছবি সৌজন্যে : zigwheels

এই নতুন ভ্যারিএন্টের প্রধান বিশেষত্ব হল নতুন ১০.২৫-ইঞ্চি টাচস্ক্রিন দেওয়া, যদিও এটি Tata Nexon EV Max Dark Edition –এ প্রথম চালু করা হয়েছিল। অন্যান্য আরও ফিচার্সগুলির মধ্যে রয়েছে,

  • ওয়্যারলেস অ্যান্ড্রয়েড অটো এবং অ্যাপেল কারপ্লে কানেক্টিভিটি।
  • আপগ্রেডেড রিভার্স ক্যামেরা।
  • ইন্টিগ্রেটেড ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট।
Tata Nexon EV Max : দুর্দান্ত ফিচার্সে নতুন করে সাজানো হল টাটার এই ইভি কে

ছবি সৌজন্যে : zigwheels

Tata Motors –এর এই নতুন টাচস্ক্রিনটি প্রথমে Harrier এবং Safari SUV-এর রেড ডার্ক এডিশনের সাথে দেওয়া হয়েছিল, কিন্তু Nexon রেড ডার্ক এডিশনে কোনদিনই দেওয়া হয়নি। এছাড়াও, হ্যারিয়ার এবং সাফারি এসইউভি (SUV) গুলি নতুন টাচস্ক্রিন সহ একটি এডভান্সড ড্রাইভার অ্যাসিস্ট্যান্ট সিস্টেম (ADAS) স্যুট পেয়েছে, কিন্তু Nexon পুরোপুরি ভাবেই এই ফিচার্স থেকে বঞ্চিত থেকেছে।

Tata Nexon EV Max : ইঞ্জিন এর ক্ষমতা কতখানি

Nexon EV Max-এ একটি 40.5kWh ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে যেটি 453km এর মাইলেজ দিতে সক্ষম, সর্বোপরি এটি অটোমোটিভ রিসার্চ অ্যাসোসিয়েশান অফ ইন্ডিয়া (ARAI) -দ্বারা স্বীকৃতি প্রাপ্ত। কিন্তু, রিয়েল ওয়ার্ল্ড রেঞ্জ টেস্ট –এর মতে এই গাড়ির গড় মাইলেজ প্রায় 266 কিমি । এই গাড়িতে সিঙ্গেল-ইলেকট্রিক মোটর থেকে 143hp এবং 250Nm টর্ক উৎপন্ন করে সামনের চাকায় পাওয়ার দেওয়া হয়।

এই গাড়িতে সাধারনত দুটি চার্জার দেওয়া হয়েছে – একটি 3.3kW এবং একটি 7.2kW। আগের চার্জারটি দিয়ে ব্যাটারিটি ১০-১০০% চার্জ করতে সময় লাগতো ১৫ ঘণ্টা, এখন 7.2kW চার্জার দিয়ে এটি ০-১০০%  চার্জ করতে ৬.৫ ঘন্টা সময় নেয় বলে দাবি করা হয়েছে সংস্থার তরফে। এছাড়া, Nexon EV Max Dark এডিশনে 50kW DC ফাস্ট চার্জিং এর সুবিধাও আছে, যা Tata এর মতে, ৫৬ মিনিটে ব্যাটারি টিকে ৮০% পর্যন্ত চার্জ করে দেওয়ার ক্ষমতা রাখে।

Tata Nexon EV Max : এর প্রতিদ্বন্দ্বী কে

Nexon EV Max-এর প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে বর্তমানে নতুন লঞ্চ হওয়া Mahindra XUV400 কেই ধরা যেতে পারে, যার দাম ভারতে ১৫.৯৯ থেকে ১৯.১৯ লক্ষ টাকা (এক্স-শোরুম)।

আরো পড়ুন