Maruti Suzuki থেকে Tata Motors, নতুন বছরে দাম বাড়তে চলেছে এই কোম্পানিগুলির গাড়ির

আগামী বছর 2024-শে এক ধাক্কায় বাড়তে চলেছে চার-চাকার দাম। দেশের নামী অটোমেকার কোম্পানি গুলি নতুন বছরে গাড়ির দাম বাড়ানোর পরিকল্পনা করেছে।

আপনি 4-হুইলার কেনার জন্য দীর্ঘদিন ধরে চিন্তা ভাবনা করছেন? তাহলে আর দেরী না করে এই বছরের শেষে কিনে ফেলুন নিজের পছন্দমতো গাড়ি। কারন আগামী বছর 2024-শে এক ধাক্কায় বাড়তে চলেছে চার-চাকার দাম। দেশের নামী অটোমেকার কোম্পানি গুলি নতুন বছরে গাড়ির দাম বাড়ানোর পরিকল্পনা করেছে।

Maruti Suzuki

প্রসঙ্গত, দেশের শীর্ষ স্থানীয় অটোমেকার সংস্থা যেমন- Maruti Suzuki, Mahindra & Mahindra, Audi India, Hyundai Cars এবং MG Motors তাদের চার-চাকার গাড়ির দাম বাড়াতে চলেছে 2024-শে।

Maruti Suzuki থেকে Tata Motors, দেখে নিন কোন কোন গাড়ির দাম বাড়তে চলেছে

Maruti Suzuki : ভারতের জনপ্রিয় অটোমেকার সংস্থা Maruti Suzuki India, সর্বশেষ গাড়ির দাম বাড়িয়েছিলো 2023 এর এপ্রিল মাসে। প্রায় 0.8% এর মতো গাড়ির ওপরে দাম বেড়েছিলো। এর প্রভাব পড়েছিলো, গত অর্থবছরে। রিপোর্ট অনুযায়ী, মোট মূল্য বৃদ্ধির 2.4% প্রভাবিত করেছিলো।

আরও পড়ুন : Citroen : ব্র্যান্ড নিউ দুটি মডেল নিয়ে বাজারে আসছে Citroen, কিলার লুকের পাশাপশি থাকবে দুর্ধর্ষ ফিচারস

Tata Motors : Tata Motors 2024 সালের জানুয়ারিতে, প্যাসেঞ্জার গাড়ি ও ইলেকট্রিক গাড়ির দাম বৃদ্ধির পরিকল্পনা করেছেন। তবে, বিখ্যাত গাড়ি নির্মাতা দাম বৃদ্ধির কোনো পার্সেন্টেজ শেয়ার করেননি। এই বছরের নভেম্বরে কোম্পানির একজন মুখপাত্র বলেছেন …‘আমরা জানুয়ারি 2024 সালে আমাদের যাত্রী এবং বৈদ্যুতিক যানবাহন জুড়ে দাম বৃদ্ধির কথা বিবেচনা করছি। দাম বৃদ্ধির পরিমান এবং সঠিক বিবরন কয়েক সপ্তাহের মধ্যে ঘোষণা করা হবে।’’

Audi India : জার্মানির লাক্সারিয়াস গাড়ি Audi। এই নামী অটোমেকার কোম্পানির নির্মাতা কিছু মাস আগে জানিয়েছিলেন, আগামী বছরের শুরুর দিকে অর্থাৎ জানুয়ারি থেকে তাদের গাড়ির দাম বাড়ানো হবে। এই বৃদ্ধির হার হবে 2% করে।

আরও পড়ুন : Mahindra XUV400 EV : এক চার্জে চলবে 456KM, শীঘ্রই মার্কেটে এন্ট্রি নিতে চলেছে Mahindra-র XUV400 EV

Mahindra : Mahindra & Mahindra আগামী বছর 2024 এ তার 4-হুইলারের দাম বাড়ানোর পরিকল্পনা করছে। যদিও কোম্পানি গাড়ির দাম বাড়ার ব্যাপারে সঠিক কোনো তথ্য দেয়নি। তবে, দীর্ঘদিনের মূল্য বৃদ্ধিই এর কারণ।

আরো পড়ুন